আগস্ট 18, 2022

বিদ্যুৎ শ্রমিক আন্দোলন: বিদ্যুৎ শ্রমিকদের বিক্ষোভ

1 min read

রাজ্য বিদ্যুৎ বিতরণ নিগম চার ইঞ্জিনিয়ার-কর্মকর্তার বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নিয়েছে।

রাজ্যে বেশ কয়েকটি বিদ্যুত দুর্ঘটনা ছড়িয়ে পড়েছে। রাজ্য বিদ্যুৎ বিতরণ নিগম চার ইঞ্জিনিয়ার-কর্মকর্তার বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নিয়েছে। দুর্ঘটনার তদন্ত করে ব্যবস্থা নিতে আপত্তি না থাকলেও ওইসব ঘটনার ক্ষেত্রে প্রতিষ্ঠানের প্রকৃত নিয়ম না মেনে অন্যায়ভাবে শাস্তি দেওয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ করেন কয়েকজন কর্মী-প্রকৌশলী। টেকনিক্যাল সুপারভাইজিং স্টাফ অ্যাসোসিয়েশন-ডব্লিউবিএসইবি তার প্রতিবাদে এবং কোনও শর্ত ছাড়াই ইঞ্জিনিয়ারদের বরখাস্ত প্রত্যাহারের দাবিতে শুক্রবার বিদ্যুৎ ভবনের সামনে একটি প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে। দুর্ঘটনা রোধে সময়মতো রক্ষণাবেক্ষণসহ বিভিন্ন ব্যবস্থার দাবি জানান তারা। সংগঠনটির দাবি, তাদের মতো আরও কয়েকটি অরাজনৈতিক সংগঠনও সমাবেশে অংশ নেয়।

বিতরণ কোম্পানি জানিয়েছে, নিয়মানুযায়ী চারজন শোকজ করছে। সেই উত্তরের উপর ভিত্তি করেই কাজ করা হয়। তবে সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক তরুণ কান্তি দাহার দাবি, “আমরা সরকারের জনহিতকর ভিশন বাস্তবায়নের চেষ্টা করছি।” দুর্ঘটনা রোধ করতে চাই। কিন্তু ঘটনার তদন্ত করে প্রকৃত কারণ উদঘাটনের আগেই স্টেশন ম্যানেজারদের দায়ী করা হচ্ছে। সংগঠনের নীতি প্রণয়নের দায়িত্ব তাদের নয়। আসামিদের যেভাবে ছুটিতে পাঠানো হয়েছে তা সংগঠনের নিয়মে নেই।

তাদের মতে, পুরানো অবকাঠামো প্রতিস্থাপন বা রক্ষণাবেক্ষণের জন্য কর্তৃপক্ষের কাছে অনুরোধ পাঠানো হয়। অনুমতি দেওয়া হলে, এটি স্টেশন ম্যানেজার দ্বারা কার্যকর করা হয়। তরুণবাবুর দাবি, বাঁকুড়ার লালবাজারে দুর্ঘটনার আগে রক্ষণাবেক্ষণ কর্মীরা গাছ কাটতে চাইলেও স্থানীয় বাধার কারণে পারেননি। পরে রাতে তাকে কাটা হলে অভিযোগ বা তথ্য এজেন্সির কাছে আসেনি। তাদের হুমকি ও শাস্তি প্রত্যাহার না হলে বৃহত্তর আন্দোলন করা হবে।